বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল ২০২৪, ০৮:৫৩ পূর্বাহ্ন

নবীগঞ্জে ইভটিজিংয়ের কারণে কলেজ ছাত্রীর পড়ালেখা বন্ধ

নবীগঞ্জ (হবিগঞ্জ) সংবাদদাতা : নবীগঞ্জ উপজেলার ইনাতগঞ্জে বখাটের ইভটিজিংয়ের কারণে কলেজে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে এক ছাত্রী। ওই ছাত্রী কলেজে যাওয়া আসার পথে প্রায়ই অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ ও নানা ধরণের ভয়ভীতি দেখানোর কারণে ভয়ে ছাত্রীর অভিভাবক তার পড়ালেখা বন্ধ করে দিয়েছেন। এমনকি কলেজ যাওয়া বন্ধ করে দেয়ার পরও ওই ছাত্রীর বাড়িতে গিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা ও আপত্তিকর ছবি তুলে ফেসবুকে পোষ্ট করার হুমকি দেয়ারও অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় ওই ছাত্রীর পিতা মদব্বির হোসেন  বাদি হয়ে হবিগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতে মামলা দায়ের করেছেন।
সুত্রে জানা যায়, নবীগঞ্জ উপজেলার ইনাতগঞ্জ ইউনিয়নের মদব্বির হোসেন এর জনৈকা কন্যা ইনাতগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের ছাত্রী কলেজে যাওয়া আসার সময় রাস্তাঘাটে প্রতিনিয়ত বিভিন্ন অশ্লীল অঙ্গভঙ্গি প্রদর্শন ও উত্ত্যক্ত করতো ইনাতগঞ্জ ইউনিয়নের মধ্য সমত গ্রামের মৃত গফুর উল্লার পুত্র সিএনজি অটোরিকশা চালক জায়েদুল হক। ঘটনাটি জায়েদুলের অভিভাবকদের জানানোর পরেও কোন বিচার পাননি। এমনকি বিচার দেওয়ায় আরো ক্ষিপ্ত হয়ে উঠে জায়েদুল। তার ইভটিজিং এর শিকার হয়ে ওই ছাত্রী কলেজ যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে। এমনকি গেল মাসের ২৬ তারিখে ওই ছাত্রীর পিতা মাতা বাড়িতে না থাকার সুযোগে একা পেয়ে ধর্ষনের চেষ্টা চালায় জায়েদুল। এসময় জায়েদুল অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ওই ছাত্রীর আপত্তিকর বিভিন্ন ছবি মোবাইল ফোনে তুলে ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়ার হুমকি দেয়। তার চিৎকার শুনে পাশের ঘর থেকে বড় বোন এগিয়ে আসলে তাকেও আঘাত করা হয়। রক্তাক্ত অবস্থায় আহতদের উদ্ধার করে নবীগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে। এ ঘটনায় কলেজ ছাত্রীর পিতা মদব্বির হোসেন বাদী হয়ে জায়েদুল হককে একক আসামী করে হবিগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতে মামলা দায়ের করেছেন। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে নবীগঞ্জ থানা পুলিশকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন। ওই ছাত্রী জানায়, ইভটিজিং এর কারণে সে কলেজে যেতে পারেনা। এমনকি তার ছবি ও নাম দিয়ে ফেসবুকে আইডি খুলে বিভিন্ন খারাপ ছবি পোষ্ট করা হচ্ছে। এসব কারণে সমাজে মুখ দেখাতে পারছেন না। এ ঘটনায় থানায় জিডি করা হয়েছে। এমনিক জায়েদুলের অহরহ হুমকি ধামকিতে তারা নিরাপত্তহীনতায় রয়েছেন। এজন্য প্রশাসনের সহযোগীতা চেয়েছেন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন

ওয়েবসাইটের কোন কনটেন্ট অনুমতি ব্যতিত কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি।
Design & Developed BY ThemesBazar.Com